বিনোদন

কুঁচকে গিয়েছে চামড়া, নেই ত্বকের উজ্জ্বলতা, রাজ ঘরণীর নয়া লুকে বাকরুদ্ধ নেটপাড়া

শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায় হলেন টলিউড সিনেমা জগতের একজন জনপ্রিয় অভিনেত্রী। এছাড়াও তিনি পরিচালক রাজ চক্রবর্তীর স্ত্রী হিসেবেও পরিচিত। তিনি তার প্রতিভার মাধ্যমে জনগণকে তার প্রতি আকর্ষিত করে তুলেছে এবং তিনি আরো জনপ্রিয়তা লাভ করার জন্য বিভিন্ন ধরনের কাজ করে চলেছেন। তাকে ভিন্ন ভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যাচ্ছে। যা দেখে অবাক হয়ে যাচ্ছেন তার ভক্তরা। শুভশ্রীর বিয়ের পর তার উজ্জ্বলতা যেন দিন দিন বেড়েই চলেছে।

অভিনেত্রী শুভশ্রী গাঙ্গুলীর নতুন ভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করা ছবিগুলি হল “পরিণীতা”, “হাবজি গাবজি” “ইন্দুবালা ভাতের হোটেল”, “বৌদি ক্যান্টিন” ইত্যাদি। “পরিনীতা” ছবির মাধ্যমে শুভশ্রী গাঙ্গুলী অনেক অনেক ভালোবাসা পেয়েছেন দর্শকদের থেকে। এছাড়াও সম্প্রতি প্রকাশ্যে আসতে চলেছে অভিনেত্রী শুভশ্রী গাঙ্গুলীর অভিনীত “ইন্দুবালা ভাতের হোটেল” এবং “বৌদি ক্যান্টিন”।

“ইন্দুবালা ভাতের হোটেলে” ছবিতে শুভশ্রীর বৃদ্ধা রূপ চমকে দেবে দর্শকদের। “ইন্দুবালা ভাতের হোটেল” ছবির মুখ্য চরিত্র বৃদ্ধা ইন্দুবালা যে অভিনেত্রী শুভশ্রী গাঙ্গুলী সেটা বুঝতে অনেক কসরত করতে হবে সাধারণ দর্শককে। যুবতী তারকা শুভশ্রী গাঙ্গুলীর কালো চুলের বদলে মাথায় খোঁপা করা সাদা চুল, টানটান উজ্জ্বল চামড়ার বদলে কুঁচকানো বলি রেখাযুক্ত চামড়া, ঘোলাটে কাঁচের পুরনো দিনের চশমা শুভশ্রীর লুককে পুরোপুরি যুবতী থেকে বৃদ্ধার লুকে পরিণত করেছে। সুতরাং এটাই যে সেই আমাদের জনপ্রিয় অভিনেত্রী শুভশ্রী গাঙ্গুলী সেটা বোঝা দর্শকদের কাছে খুবই কষ্টকর ব্যাপার।

আশা করা যায় এই ছবি মুক্তি পাওয়ার পর শুভশ্রী গাঙ্গুলীর ভক্তবৃন্দের সংখ্যা আরো বেড়ে যেতে পারে এবং তিনি এই ছবির মাধ্যমে অনেক অনেক আন্তরিকতা ও ভালোবাসা পেতে পারে সাধারণ দর্শকদের থেকে। তারকা শুভশ্রী গাঙ্গুলীর স্বামী অর্থাৎ পরিচালক রাজ চক্রবর্তীও এই ছবিতে শুভশ্রী গাঙ্গুলীকে বৃদ্ধা চরিত্রে অভিনয় করতে দেখে অবাক হয়ে যান। প্রথম দিকে তো তিনি তার স্ত্রী অর্থাৎ অভিনেত্রী শুভশ্রী গাঙ্গুলীকে বৃদ্ধা রূপে চিনতেই পারেননি। কিন্তু পরবর্তীকালে তিনি তার স্ত্রী অর্থাৎ অভিনেত্রী শুভশ্রী গাঙ্গুলিকে এই রূপে অভিনয় করতে দেখে খুবই আনন্দিত। এবং শুভশ্রীকে এরকম আরো অন্যান্য ধরনের চরিত্রে অভিনয় করার জন্য উৎসাহ দেন তিনি।

Related Articles